কিরগিজস্তানে এশিয়ার সবচেয়ে বড় মসজিদ নির্মাণ করল তুরস্ক

কিরগিজস্তানে এশিয়ার সবচেয়ে বড় মসজিদ নির্মাণ করল তুরস্ক

কিরগিজস্তানের রাজধানী বিশকেকে এশিয়ার সবচেয়ে বড় ও মনোরম মসজিদ নির্মাণ করেছে তুরস্কের একটি সংস্থা। তুরস্কের দিয়ানেত ফাউন্ডেশন সম্প্রতি মসজিদটির নির্মাণ কাজ শেষ করে। উসমানি খিলাফতের সময়কালের স্থাপত্যকে অনুসরণ করে মসজিদটি নির্মাণ করা হয়েছে।

২০১২ সালে মসজিদটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়। ৩৫ একর (১৪১,৬৪০ স্কয়ার মিটার) জায়গা জুড়ে মসজিদটি নির্মাণ করা হয়েছে। বিশাল এই মসজিদে অন্তত ২০ হাজার মানুষ একত্রে নামাজ আদায় করতে পারবেন।

তুরস্কের আঙ্কারায় অবস্থিত বিখ্যাত কোকাটেপে মসজিদের আদল এখানে খুঁজে পাওয়া যাবে। মসজিদে নামাজ আদায়ের স্থান ছাড়াও সাদিভান ঝরনা, প্রশাসনিক ভবন, কোরআন শিক্ষার স্থান, কনফারেন্স হল, ক্যাফেটারিয়া ও গাড়ি রাখার ব্যবস্থা রয়েছে। গাড়ি রাখার স্থানে প্রায় ৫শ’ গাড়ি একসঙ্গে রাখা সম্ভব।

মসজিদটির ছাদ থেকে দু’টি সুবিশাল ঝাড়বাতি নেমে এসেছে। এছাড়া, মসজিদটির অধিকাংশই উসমানি খিলাফতের সময়কালের হস্তশিল্প দিয়ে সাজিয়ে রাখা হয়েছে। মনোরম মসজিদটি অল্প কিছুদিনের মধ্যেই জনসাধারণের জন্য খুলে দেয়া হবে।

এই বিষয়ে নির্মাণ কাজে তদারকির দায়িত্বে থাকা মুসা দামিরচি জানান, মসজিদটির শেষ পর্যায়ের কিছু ছোটখাট নির্মাণ কাজ চলছে। পরিস্কার পরিচ্ছন্নতার পর খুলে দেয়ার আগে পরিবেশগত পরিকল্পনার দিকটি দেখা হবে।

দামিরচি আরও জানান, তুরস্ক সহায়তা করলেও মসজিদটি নির্মাণে যারা কাজ করছেন তাদের ৭০ ভাগই কিরগিজ নাগরিক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fifteen + nine =